ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  জাতীয়   »   ২২ দিন ইলিশ আহরণ বন্ধ

২২ দিন ইলিশ আহরণ বন্ধ

October 11, 2016 - 2:29 PM

নিজস্ব প্রতিবেদক : আশ্বিন মাসের প্রথম চাঁদের পূর্ণিমার দিন এবং এর আগে চার ও পরের ১৭ দিনসহ মোট ২২ দিন ইলিশ ধরা বন্ধ থাকবে। মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী, আজ (মঙ্গলবার) রাত ১২টার পর থেকে ইলিশ মাছ ধরা ও বিক্রি বন্ধ থাকবে।

গত ২ অক্টোবর এ নিষেধাজ্ঞা জারি করে সরকার। নিষেধাজ্ঞায় বলা হয়, এই ২২ দিন ইলিশ আহরণ, বিতরণ, বিপণন, কেনাবেচা, পরিবহন, মজুদ, বিনিময়সহ সব ধরনের কার্যক্রম স্থগিত থাকবে। এমনকি এ সময় দেশের বিভিন্ন স্থানে মাছের আড়ত, হাটবাজার ও বিপণিবিতানগুলোতে অভিযান চালানো হবে।

নিষেধাজ্ঞার আলোকে এবার মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রণালয় দেশের ২৭টি জেলায় ইলিশ ধরার কার্যক্রম বন্ধ ঘোষণা করে।

মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযানের অংশ হিসেবে চাঁদপুর, লক্ষ্মীপুর, নোয়াখালী, ফেনী, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, বরিশাল, ভোলা, পটুয়াখালী, বরগুনা, পিরোজপুর, ঝালকাঠি, বাগেরহাট, শরীয়তপুর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, ঢাকা, মাদারীপুর, ফরিদপুর, রাজবাড়ী, জামালপুর, নারায়ণগঞ্জ, নরসিংদী, মানিকগঞ্জ, মুন্সীগঞ্জ, খুলনা, কুষ্টিয়া ও রাজশাহী জেলার সব নদ-নদীতে ইলিশ ধরা বন্ধ থাকবে।

জানা গেছে, এ ২২ দিন ইলিশ নিধন বন্ধ রাখতে প্রশাসন, পুলিশ, কোস্টগার্ড ও নৌবাহিনীর সহায়তা নেবে মৎস্য অধিদপ্তর। এ সময় তালিকাভুক্ত জেলেরা ২০ কেজি করে চাল পাবেন।

বছরের এ সময়কে মাছের প্রজনন মৌসুম ধরা হয়। আগে প্রজনন মৌসুমে ১১ দিন ইলিশ ধরা নিষিদ্ধ ছিল। গত বছর ১১ দিন থেকে বাড়িয়ে ১৫ দিন করা হয়। চলতি বছর করা হলো ২২ দিন।

এর কারণ হিসেবে মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানান, নিষেধাজ্ঞার সময় পার হওয়ার পরও মা ইলিশ সমুদ্রে ফিরে যাওয়ার সময় ধরা পড়ে। এজন্য গত বছর ইলিশ ধরা নিষিদ্ধের সময় ১১ দিন থেকে বাড়িয়ে ১৫ দিন করা হয়। এরপরও মা ইলিশ ধরা পড়ায় এবার এই সময় ২২ দিন করা হয়েছে।

আপনার মতামত জানানঃ