ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  ধর্ম   »   শিশু নির্যাতনরোধে ইসলাম

শিশু নির্যাতনরোধে ইসলাম

অক্টোবর ১৬, ২০২০ - ১২:১৪ অপরাহ্ণ

ইসলাম বিশ্বমানবতার মূর্তপ্রতীক। মানবতার কল্যাণ সাধনেই যার আবির্ভাব। সব সমম্যায় ইসলাম পূর্ণাঙ্গ জীবন বিধান। বর্তমান সময়ে আলোচিত বড় সমস্যা হচ্ছে শিশু নির্যাতন। যা মহামারী আকার ধারণ করেছে।

প্রতি বছর বাংলাদেশে শিশু নির্যাতনের হার বাড়ছে। চলতি বছর গড়ে মাসিক শিশু নির্যাতনের হার ২০ শতাংশ বেড়েছে। এমনটাই জানিয়েছে শিশুবিষয়ক আন্তর্জাতিক সংস্থা চাইল্ড রাইটস অ্যাডভোকেসি কোয়ালিশন ইন বাংলাদেশ (সিআরএসিবি)।

শিশু নির্যাতন সম্পর্কে মহানবী (সা.)-বলেন

ইসলাম শিশু ও নারী নির্যাতন দমনে শাস্তির নির্দেশনা আরও কঠোর। বিশেষত শিশু নির্যাতনকে ইসলাম জঘন্য ও শাস্তিযোগ্য অপরাধ বলে ঘোষণা করেছে। রাসুল (সা.) বলেছেন, ‘যে ছোটকে স্নেহ করে না সে আমার অন্তর্ভুক্ত নয়। ’ (আবু দাউদ, হাদিস: ৪৯৪৩)

শিশু ধর্ষণ সম্পর্কে ইসলাম নির্দেশনা

ধর্ষণ ইসলামী আইনশাস্ত্রের ভাষায় এক ধরনের ‘ব্যভিচার’। ধর্ষণকারী যদি বিবাহিত হয়, তাহলে ইসলামী আইনে তার শাস্তি ‘রজম’ বা পাথর নিক্ষেপ করে হত্যা।

প্রচলিত আইন ও ইসলামী আইনের মৌলিক পার্থক্য

প্রচলিত আইন শুধু অপরাধের শাস্তির কথা বলে আর ইসলামী আইন অপরাধপ্রবণতা বন্ধের জোর দাবি জানায়। শিশুর প্রতি যৌন নির্যাতন ও সহিংসতা বন্ধে ইসলাম প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা ও সচেতনতার পাশাপাশি উপযুক্ত পারিবারিক ও সামাজিক পরিবেশ গড়ে তোলার কথা বলেছে। পাশাপাশি বলেছে সামাজিক প্রতিবাদ ও ন্যায়ের পথে আহ্বানের কথা। সমাজের বিভিন্ন স্তরে ছড়িয়ে পড়া অশ্লীলতা যৌন সহিংসতাকে উসকে দিচ্ছে।

অথচ পবিত্র কোরআনে ইরশাদ হয়েছে, ‘তোমরা প্রকাশ্য ও অপ্রকাশ্য অশ্লীলতার নিকটবর্তী হয়ো না। ’ (সুরা আনআম, আয়াত: ১৫৫)

আপনার মতামত জানানঃ