বন পোড়ানো পাপ

September 14, 2016 - 2:03 PM

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : ইন্দোনেশিয়ার সর্বোচ্চ ধর্মীয় পরিষদ এক ফতোয়ায় বলেছে, বন পোড়ানো পাপ। ইন্দোনেশিয়ায় বন পুড়িয়ে ফসল উৎপাদন ও শিল্প স্থাপনের চেষ্টা করছে এক শ্রেণির লোক। ধর্মীয় নেতাদের মতে, বন পুড়িয়ে ভূমি বাড়ানো এবং ফসল উৎপাদন, যা-ই হোক না কেন, তা অপরাধ।

আগুন লাগিয়ে বন ধ্বংস করে খামার তৈরির চেষ্টা করছে ইন্দোনেশীয়রা। এ কারণে একদিকে যেমন পরিবেশের ক্ষতি হচ্ছে, অন্যদিকে পরিবেশ দূষণ হচ্ছে, মানব সমাজে যার দীর্ঘমেয়াদি প্রভাব পড়তে পারে।

গভর্নর কার্যালয়ের কর্মকর্তারা বলছেন, ধর্মীয় নেতাদের এ ফতোয়া বন পোড়ানোর বিরুদ্ধে আইন তৈরি করতে নৈতিক ভূমিকা রাখবে।

জাকার্তায় ইন্দোনেশিয়া উলেমা পরিষদ ও বন মন্ত্রণালয়ের মধ্যে বৈঠক হচ্ছে। উভয় পক্ষ বন পোড়ানোর বিরুদ্ধে আইন করতে চায়।

উলেমা পরিষদের পরিবেশবিষয়ক প্রধান হায়ু প্রবোয়ো জানিয়েছেন, অধিকাংশ ক্ষেত্রে বন পোড়াচ্ছে কোম্পানিগুলো। শরিয়্যাহ মোতাবেক এ ধরনের কাজ নিষিদ্ধ। এ বিরুদ্ধে জনগণকে দাঁড়াতে হবে।

তিনি আরো জানান, বন পোড়ানো ইসলাম সমর্থন করে না। পরিবেশের ওপর এর মারাত্মক প্রভাব রয়েছে। এখন সবাইকে এ ধরনের কাজের বিরুদ্ধে সোচ্চার হতে হবে, বন্ধ করতে হবে বন পুড়িয়ে উজাড় করা।

আপনার মতামত জানানঃ