ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  ক্রাইম   »   পেটে থাকা ৩১ প্যাকেট ইয়াবা ফেটে মাদক ব্যবসায়ীর মৃত্যু

পেটে থাকা ৩১ প্যাকেট ইয়াবা ফেটে মাদক ব্যবসায়ীর মৃত্যু

সেপ্টেম্বর ২৯, ২০২০ - ১১:৪৬ পূর্বাহ্ণ

রাজশাহীতে এক মাদক ব্যবসায়ীর পেট কেটে ৩১ প্যাকেট ইয়াবা বড়ি উদ্ধার করা হয়েছে। প্রতি প্যাকেটে ছিল ৫০টি করে বড়ি। কক্সবাজার থেকে পাকস্থলীতে ইয়াবা বহন করে আনার সময় পাবনায় ধরা পড়েন তিনি। ইয়াবাগুলো বের করার জন্য তাকে গত রোববার রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে রাতে মাদক ব্যবসায়ী শুকুর মারা যান। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে জানায় পুলিশ।

গত ২৩ সেপ্টেম্বর পাবনা হাসপাতাল রোড এলাকা থেকে শুকুর ও তার দুই সহযোগীকে দেড়শো পিস ইয়াবাসহ গ্রেপ্তার করে গোয়েন্দা পুলিশ। জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে শুকুর তার পেটের মধ্যে আরোও ইয়াবা আছে বলে পুলিশের কাছে স্বীকার করে।

এরপর পাবনা সদর হাসপাতালে আল্ট্রাসনোগ্রাম ও এক্স-রে করে পুলিশ বিষয়টি নিশ্চিত হলেও ইয়াবাগুলো বের করার কোনো ব্যবস্থা করতে পারেনি। তাই গেল রোববার তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে মধ্যরাতে সে মারা যায়।

রাজশাহী মেডিকেল কলেজ অধ্যক্ষ মো. নওশাদ আলী জানান, তার পাকস্থলীর ভেতরে ৩১ প্যাকেট ইয়াবা পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ১৬টি অক্ষত অবস্থায় থাকলেও বাকি ১৫টি প্যাকেট ফেটে গলে যাওয়ার কারণেই তার মৃত্যু হয়।

সোমবার দুপুরে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট আবদুল মালেকের উপস্থিতিতে ময়নাতদন্তের সময় তার পেট কেটে ৩১ প্যাকেট ইয়াবা বের হয়। প্রতিটি প্যাকেটে ৫০টি করে দেড় হাজারের বেশি ইয়াবা উদ্ধার করার কথা জানান রাজশাহী রাজপাড়া থানা সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. রাকিবুল ইসলাম।

পুলিশ জানায়, কক্সবাজার থেকে পাকস্থলীতে করে ইয়াবার এই চালানটি রাজশাহীতে আনার পরিকল্পনা ছিল শুকুরের। তার বাড়ি কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার বাজারপাড়া এলাকায়।

আপনার মতামত জানানঃ