ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  জাতীয়প্রধান সংবাদ   »   দুর্ঘটনার শঙ্কায় চালকরা,ফ্লাইওভারেও কাদা – বালি

দুর্ঘটনার শঙ্কায় চালকরা,ফ্লাইওভারেও কাদা – বালি

সেপ্টেম্বর ৯, ২০১৯ - ১২:৪৬ অপরাহ্ণ

নিউজ ডেস্কঃ দীর্ঘদিন ধরে পরিষ্কার না করায় রাজধানীর কুড়িল ফ্লাইওভারের দুই পাশে বালি মাটির স্তর জমেছে। একটু বৃষ্টি হলেই এ বালি ভিজে কাদায় পরিণত হয়।
বালি কিংবা কাদা- দুই পরিস্থিতিতেই দুর্ঘটনার ঝুঁকি নিয়ে চলছে যানবাহনগুলো। সবচেয়ে বেশি বিপদের শঙ্কা মোটরসাইকেলগুলোর জন্য।

ফ্লাইওভারের ওপরে জমে থাকা বালি-মাটি যখন শুকনো থাকে, তখনো এর ওপর দিয়ে চলাচল করার সময় গাড়ির চাকা স্লিপ করে। এক্ষেত্রে বেশি বিপদে পড়তে হয় মোটরসাইকেলকে। রাস্তার সঙ্গে ঘর্ষণ কমে গিয়ে চাকা স্লিপ করার ঘটনাও ঘটে।
বৃষ্টি হলেতো কোনো কথাই নেই, বালি-মাটি ভিজে একেবারে মরণফাঁদ। যে কোনো সময় সেখানে চাকা স্লিপ করে ঘটতে পারে বড় ধরনের দুর্ঘটনা।কুড়িল ফ্লাইওভারে উঠতেই চোখে পড়ে বালির স্তূপ, বৃষ্টি হলে যা কাদায় পরিণত হয়। ছবি: শাকিল আহমেদদীর্ঘদিন ধরে খোলা ট্রাকে মাটি ও বালি পরিবহনের সময় সেখান থেকে পড়ে পড়ে এসব বালি-মাটি জমেছে বলে মনে করা হচ্ছে। কখনো কখনো সিটি করপোরেশনের ময়লার ট্রাক থেকেও এ ময়লা পড়েছে বলে ধারণা সংশ্লিষ্টদের।

সচরাচর ফ্লাইওভারের ওপরের অংশ পরিষ্কার করতে দেখা যায় না। বেশির ভাগ ক্ষেত্রে বৃষ্টিতে ধুয়ে গিয়ে যতটা পরিষ্কার হয় তার ওপর ভরসা করতে হয়।
কুড়িল ফ্লাইওভার দিয়ে মোটরসাইকেলে নিয়মিত আসা যাওয়া করেন সুমন দাস। তিনি বলেন, রাস্তার বিভিন্ন জায়গায় বালি-কাদা জমে। এখন দেখি ফ্লাইওভারের ওপরও বালি আর কাদা।

সুমন বলেন, ফ্লাইওভারে উঠতে এবং নামতে ঢালু। এছাড়া সাধারণ রাস্তার চেয়ে ফ্লাইওভার সরু। ফ্লাইওভারের রেলিং বা কিনারা ঘেষে যে বালু বা ভিজে যে কাদা সৃষ্টি হয়, তার ওপর চাকা গেলে স্লিপ করে যে কোনো সময় দুর্ঘটনা ঘটতে পারে।কুড়িল ফ্লাইওভারে উঠতেই চোখে পড়ে বালির স্তূপ, বৃষ্টি হলে যা কাদায় পরিণত হয়। ছবি: শাকিল আহমেদসিএনজিচালিত অটোরিকশার চালক কাওছার বলেন, সাবধানে গাড়ি চালাতে হয়। দুই পাশের বালি-কাদা বাদ দিয়ে চালাতে হয়। কখনো কখনো পাশ থেকে বাস বা অন্য গাড়ি ওভারটেক করার সময় বেকায়দায় পড়তে হয়।
শিহাবউদ্দিন নামে একজন বলেন, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্নতার দায়িত্বে যারা আছেন তারা তাদের কাজটা ঠিক মতো করছেন না। এগুলো নিয়মিত পরিষ্কার রাখা উচিত। একটা দুর্ঘটনা হলে তখন হয়তো সবার নজরে আসবে, কিন্তু দুর্ঘটনার আগেই অ্যাকশন নেওয়া দায়িত্বশীলতার পরিচয়।

আপনার মতামত জানানঃ