ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  আন্তর্জাতিক   »   ত্রাণের গাড়িবহরে হামলায় রাশিয়া যুক্ত : যুক্তরাষ্ট্র

ত্রাণের গাড়িবহরে হামলায় রাশিয়া যুক্ত : যুক্তরাষ্ট্র

September 21, 2016 - 6:16 AM

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : যুক্তরাষ্ট্র দাবি করেছে, সিরিয়ার আলেপ্পো শহরের কাছে ত্রাণের গাড়িবহরে প্রাণঘাতী হামলার জন্য রাশিয়া দায়ী।

হোয়াইট হাউস বলেছে, মানবিক দিক থেকে এটি বড় ধরনের ট্র্যাজেডি। যুক্তরাষ্ট্রের কর্মকর্তারা বিবিসিকে জানিয়েছেন, রাশিয়ার দুটি বিমান থেকে এ হামলা চালানো হয়েছে।

যুক্তরাষ্ট্র এমন দাবি করলেও রাশিয়া স্পষ্ট ভাষায় তা প্রত্যাখ্যান করেছে। তাদের দাবি, রাশিয়া বা সিরিয়ার বিমান থেকে এ হামলা হয়নি। আগুন লেগে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে, বিমান হামলায় নয়।

রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, বিমান থেকে বোমা হামলার কোনো চিহ্ন নেই এবং ত্রাণের গাড়িগুলোতে বোমায় ক্ষতিগ্রস্তের কোনো আলামত নেই।

রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র দাবি বলেছেন, দাবির পক্ষে যুক্তরাষ্ট্রের হাতে প্রমাণ নেই। তিনি আরো বলেন, ‘উদ্ভূত পরিস্থিতিতে আমাদের কিছু করারও নেই।’

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক মার্কিন কর্মকর্তারা দাবি করেছেন, ত্রাণে গাড়িবহর আলেপ্পোর কাছে উরম আল-কুবরায় অবস্থান করার সময় আকাশ থেকে রাশিয়ার দুটি এসইউ-২৪ বিমান সেখানে বোমা ফেলে। তারা আরো দাবি করেছেন, এ ধরনের স্পর্শকাতর হামলা সিরিয়ার সেনাবাহিনীও চালিয়ে থাকতে পারে।

হোয়াইট হাউসের মুখপাত্র বেন রোহডেস এ বিষয়ে পরে বলেন, ‘রাশিয়া অথবা সিরিয়া দুই দেশই কেবল এ হামলার জন্য দায়ী হতে পারে। যা হোক না কেন, এই স্থানে বিমান হামলার জন্য আমরা রাশিয়াকে দায়ী বলে ধরে নেব।’

এদিকে এর আগে জাতিসংঘ বলেছিল, বিমান থেকে এ হামলা চালানো হয়েছে কি না, তা নির্দিষ্ট করে বলা যাচ্ছে না।

সোমবার ত্রাণে গাড়িবহরে হামলায় ৩১টি ত্রাণবোঝাই ট্রাকের মধ্যে ১৮টি আঘাতপ্রাপ্ত হয়। সিরিয়ান আরব রেড ক্রিসেন্টের একজন জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তাসহ এ হামলায় মারা যায় ২০ জন। হামলার পর ত্রাণ তৎপরতা বন্ধ করে দেয় জাতিসংঘ।

এদিকে মঙ্গলবার জাতিসংঘ মহাসচিব বান কি মুন সাধারণ পরিষদের ভাষণে বেসামরিক লোক হত্যার জন্য দায়ী করেন সিরীয় সরকার ও বিদ্রোহীদের। তবে সাধারণ মানুষ হত্যার জন্য তিনি সিরীয় সরকারকেই বেশি দোষী মনে করেন।

বান কি মুন আরো বলেন, যারা যুদ্ধ জিইয়ে রেখেছে, তাদের হাতও সিরীয়দের রক্তে রঞ্জিত। তবে মহাসচিবের এ বক্তব্যের প্রতিবাদ করেছে সিরিয়া।

আপনার মতামত জানানঃ