ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  আন্তর্জাতিক   »   জঙ্গল থেকে ৭২ ঘণ্টা পর তিন বছরের এক শিশুকে জীবিত উদ্ধার

জঙ্গল থেকে ৭২ ঘণ্টা পর তিন বছরের এক শিশুকে জীবিত উদ্ধার

September 23, 2016 - 2:54 PM

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : রাশিয়ার শীতল সাইবেরিয়া অঞ্চলের জঙ্গল থেকে ৭২ ঘণ্টা পর তিন বছরের এক শিশুকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে। উদ্ধারের সময় শিশুটির পকেটে ছিল স্রেফ একটি চকলেট বার। বৃহস্পতিবার বিবিসি এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

তেসেরিন দোপচাত নামের ওই শিশুটির পরিবার তুভা রিপাবলিকের খাট এলাকার একটি গ্রামের বাসিন্দা। সে তার দাদীর সঙ্গে থাকতো। খেলাচ্ছলে একটি ছোট কুকুরের পিছে পিছে যাওয়ার সময় শিশুটি পথ হারিয়ে ফেলে। পরে গ্রামবাসী ও স্থানীয় পুলিশ দিনে ও রাতে শিশুটির খোঁজে তল্লাশি অভিযান চালায়। এমনকি ১২০ বর্গকিলোমিটার এলাকায় একটি হেলিকপ্টার দিয়েও তল্লাশি চালানো হয়।

সাইবেরিয়ার বিস্তৃর্ণ অঞ্চলে নেকড়ে ও ভাল্লুকের আনাগোনা অনেক বেশি। তাই শিশুটি এসব প্রাণীর হাতে মারা পড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছিল। এছাড়া প্রবল শীত ও ওই এলাকার পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া মাইনাস নদীতে শিশুটির পড়ে যাওয়ার শঙ্কাও ছিল।

তুভার বেসামরিক প্রতিরক্ষা ও জরুরি সেবা বিভাগের প্রধান আয়াস সরিগ্লার বলেন, ‘পরিস্থিতি ছিল খু্বই ভয়ংকর। মাইনাস নদীতে প্রবল স্রোত ও ঠান্ডা পানি। কোনো শিশু সেখানে পড়ে গেলে নিশ্চিত মৃত্যু। জঙ্গলে নেকড়ে ও ভাল্লুকতো রয়েছেই। আগামী শীতকে সামনে রেখে ভাল্লুকগুলো এখন মোটাতাজা হচ্ছে। নড়াচড়া করে এমন যে কোনো জিনিসের ওপরই তারা হামলা চালায়। এছাড়া দিনে গরম ও রাতে প্রচণ্ড ঠান্ডাতো রয়েছেই। ছেলেটি দিনের বেলায় নিখোঁজ হলে তার গায়েতো শার্ট আর জুতা ছাড়া তেমন কোনো ভারী পোশাকও ছিল না।’

অপর এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, শেষ পর্যন্ত ছেলেটি তার চাচার ডাক শুনে সাড়া দিলে তাকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়। চাচাকে জড়িয়ে ধরে তার প্রথম প্রশ্ন ছিল, তার খেলনা গাড়িটি ঠিক আছে কি না।

পরে উদ্ধারকারীরা দেখতে পান, ছেলে আশ্রয়ের জন্য একটি লার্ক বৃক্ষের নিচে শুকনা জায়গা বেছে নিয়েছিল। সেখানে সে গাছের শিকড়ের মধ্যে ঘুমিয়েছে তিন রাত।

আপনার মতামত জানানঃ