ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  লাইফস্টাইল   »   কাঁচা নুন খেলে হতে পারে যে বিপদ

কাঁচা নুন খেলে হতে পারে যে বিপদ

নভেম্বর ১৩, ২০২০ - ৬:৫৯ অপরাহ্ণ

রান্নাতে নুনের পরিমাণ কম-বেশি হলেই সেই খাবারের স্বাদ নষ্ট হয়ে যায়। ফলে নুনের ব্যবহার সবসময় মেপেই করা উচিত। পাতে নুন, লেবু আর কাঁচালঙ্কা না থাকলে অনেকেই খেতে পারেন না। বিশেষজ্ঞরা কিন্তু সবসময় কাঁচা নুন এড়িয়ে যাওয়ার কথা বলেন। কারণ কাঁচা নুন থেকেই আসে নানা শারীরির সমস্যা। আসে কিডনির মতো জটিল সমস্যাও। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার মতে, একজন পূর্ণবয়স্ক মানুষ প্রতিদিন ৫ গ্রামের বেশি নুন কিছুতেই খাবেন না। তবে ২ থেকে ১৫ বছর বয়স পর্যন্ত চাহিদা মতো নুন খেতে হবে। কারণ নুনে থাকে আয়োডিন। যা শিশুদের মস্তিষ্কের বৃদ্ধিতে সাহায্য করে। মাংসপেশির ক্ষমতা বাড়ায়।

কাঁচা নুন এর ক্ষতিকর প্রভাব নিচে তুলে ধরা হল

রক্তচাপ বাড়ে

রক্তচাপ কম থাকলে নুন থেকে বলা হয়, কিন্তু কখনই তা কাঁচা নুন নয়। নুন খেলে রক্তচাপ বাড়ে। আর রক্তচাপ বাড়লেই চাপ পড়ে আর্টারিতে। সেখান থেকে বাড়ে হার্ট অ্যাটার্কের সম্ভাবনা।

হার্টের সমস্যা

প্রয়োজনের থেকে অতিরিক্ত পরিমাম নুন শরীরে প্রবেশ করলে নানা রকম সমস্যা আসতে পারে। হার্ট অ্যাঠাক, হার্ট ফেলিওর সহ- একাধিক রোগের। তাই হার্টকে সুস্থ রাখতে আজই কাঁচা নুন খাওয়া বন্ধ করুন। এছাড়াও যাঁদের নানাবিধ সমস্যা রয়েছে তারাও নুন খাওয়া বন্ধ করুন।

ক্যানসার

নুন বেশি খেলে ক্যান্সারের মত রোগও আসতে পারে। একাধিক গবেষণায় দেখা গিয়েছে নুন বেশি খেলে পাকস্থলির ক্যানসার হতে পারে।

কিডনির সমস্যায়

শরীরে ইলেকট্রোলাইটসের মাত্রা ঠিক রাখে নুন। কিন্তু তা বলে খুব বেশি পরিমাণে নুন খাওয়া একদমই ভালো নয়। কারণ বেশি করে নুন খেলে শরীরে বেশি লবণ প্রবেশ করবে। ফলে কিডনির কর্মক্ষমতা কমবে। সেই সঙ্গে বাড়বে রক্তচাপ। যা অজান্তেই শরীরকে ভেতর থেকে শেষ করে দেয়।

আলসার

শরীরে বেশি মাত্রায় নুনের প্রবেশ ঘটলে পাকস্থলির আবরণ ক্ষতিগ্রস্থ হয়, ফলে পাকস্থলি আলসারে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। সেই সঙ্গে শরীরে জলের ভারসাম্য নষ্ট হয়। ফলে নানা রকমের জটিল রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কাও বৃদ্ধি পায়।

মস্তিষ্কের কর্মক্ষমতা কমবে

বেশি মাত্রায় নুন খেলে ধীরে ধীরে স্মৃতিশক্তি কমে যেতে শুরু করবে। সেই সঙ্গে মস্তিষ্কের কর্মক্ষমতা কমে যায় এবং মনোযোগও কমে। আর এই সমস্যা হলে প্রতিদিনের জীবনও বিপন্ন হয়ে পড়ে।

আপনার মতামত জানানঃ