ক্রাইম পেট্রোল বিডি  »  রাজনীতি   »   অহেতুক বিতর্ক করবেন না : সৈয়দ আশরাফ

অহেতুক বিতর্ক করবেন না : সৈয়দ আশরাফ

September 22, 2016 - 11:07 AM

নিজস্ব প্রতিবেদক : সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে নিয়ে ‘অহেতুক বিতর্ক’ না করার জন্য বিএনপির প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম।

বৃহস্পতিবার দুপুরে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে যৌথসভা শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলার সময় এ আহ্বান জানান তিনি।

প্রধানমন্ত্রী জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের অধিবেশন শেষে আগামী ২৬ সেপ্টেম্বর দেশে ফিরলে তাকে গণসংবর্ধনা দেওয়া হবে। এ কর্মসূচি সফল করতে বৃহস্পতিবার যৌথসভা করে আওয়ামী লীগ। সভায় ঢাকা ও ঢাকার পার্শ্ববর্তী জেলা-উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক এবং দলীয় সংসদ সদস্যরা অংশ নেন।

সৈয়দ আশরাফ বলেন, নির্বাচন কমিশন নিয়োগ দেন রাষ্ট্রপতি। উনি সবার সঙ্গে আলাপ করেই সেটা করেন। তিনি যে ইলেকশন কমিশন গঠন করবেন, সেটাই হবে সবার কাছে গ্রহণযোগ্য। আমরা যদি সবকিছু নিয়েই বিতর্ক করি, হাইকোর্ট, সুপ্রিম কোর্ট, নির্বাচন কমিশনসহ অন্য সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানগুলো নিয়ে, তাহলে আমরা যাব কোথায়? আমাদের মাথা গোঁজার জায়গা কোথায়?

বিএনপি নেতাদের উদ্দেশে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানগুলোকে নিয়ে যদি অহেতুক বিতর্ক করি, তাহলে সভ্যতা থাকবে না, আইন থাকবে না। এই দেশে তাহলে গণতন্ত্র থাকবে না। দেশের মানুষের কর্তব্য হলো, এই প্রতিষ্ঠানগুলোকে বিতর্কের ঊর্ধ্বে রাখা। এ কারণেই পৃথিবীতে সভ্যতা টিকে আছে। দেশে যদি আইন-কানুন না থাকে, তাহলে সভ্যতাই থাকবে না। এই সাংবিধানিক প্রতিষ্ঠানগুলো সভ্যতার একেকটি স্তম্ভ। এই প্রতিষ্ঠান নিয়ে তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করার কিছু নাই। সুতরাং আশা রাখি, আমরা এসব প্রতিষ্ঠানকে বিতর্কের ঊর্ধ্বে রাখব এবং সম্মান দেখাব।

আওয়ামী লীগের যৌথসভায় আরো উপস্থিত ছিলেন দলের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ, জাহাঙ্গীর কবির নানক, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী প্রমুখ।

আপনার মতামত জানানঃ